মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

বিশেষ অর্জন

বিষয়

কার্যক্রমের সংক্ষিপ্ত   বিবরণ

জেলা -সেবা  কেন্দ্র

বতর্মান সরকারের ঈপ্সত তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তির সম্প্রসারণ এবং ডিজিটালবাংলাদেশ বিনির্মাণে বাগেরহাট জেলা প্রশাসনের নিয়ন্ত্রণে ইতোমধ্যেই সেবাপ্রদানেসুপ্রশিক্ষিতওসুদক্ষকর্মকর্তা/ কর্মচারীদেরনিয়েএকটিসুসজ্জিতই-সেবাকেন্দ্রখোলাহয়েছে।১৪নভেম্বর,২০১১খ্রি:  তারিখে জেলা ই-সেবা কেন্দ্র চালু হওয়ার পর থেকে গত সাড়ে চার মাসে এ সেবা কেন্দ্র থেকে সেবা নিয়েছেন প্রায় ৩০,০০০ নাগরিক।

সিসি ক্যামেরা স্থাপন

বাগেরহাট জেলা ই-সেবা  কেন্দ্রকে একটি স্বয়ং সম্পূর্ণ সেবা কেন্দ্রে পরিনত করতে, ই-সেবা কেন্দ্রের  উপর  গ্রাহকের আস্হা সুদৃঢ় করতে এবং  জেলা  প্রশাসকের  কার্যালয়, বাগেরহাট  এর  নিরাপত্তা জোরদার  করার লক্ষ্যকে  সামনে রেখে  জেলা  প্রশাসন, বাগেরহাট  এরস্ব-উদ্যোগে এবং স্হানীয়  ব্যবস্হাপনায়  বাগেরহাট  কালেক্টরেটের ০২(দুই) টি  প্রবেশ পথ  সহ  বিভিন্ন  শাখায় (ই-সেবা কেন্দ্র ও রেকর্ডরুম সহ) ইতোমধ্যে ০৯টি Closed  Circuit  Camera  (সিসিক্যামেরা)  স্হাপন করা হয়েছে।  রেকর্ডরুমের  সাথে  সংশ্লিষ্ট  দালাল  ও মুহুরী সিন্ডিকেট এর  অপতৎপরতা  রোধে, রেকর্ডরুম  সহকারীদের  কাজের  তদারকিতে  জেলা  কাউন্টারে  সেবা  প্রাথীদের প্রতি  কাউন্টার সহকারীদের  পরিশীলিত আচারন  দ্বারা  উৎকৃষ্ট  সেবা  নিশ্চিতকরণে কর্মকর্তা/ কর্মচারীগণের  গতিবিধি পর্যবেক্ষণ  ও  কালেক্টরেটের  সার্বিক  নিরাপত্তা  বিধানে  জেলা  প্রশাসক  ইতিমধ্যেই  সিসি  ক্যামেরা  সমূহের  মাধ্যমে  তাঁর  নিজ অফিস  কক্ষে  বসে সার্বক্ষণিকভাবে  দাপ্তরিককাজ  কর্ম  অবলোকন  করছেন,  যার  ফলশ্রুতিতে  সেবার  উৎকর্ষতা  অনেকগুন  বৃদ্ধি  পেয়েছে।

জেলা তথ্য বাতায়ন

ক) ভিশন-২০২১ বাস্তবায়ন তথা ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণের লক্ষ্য সামনে  রেখেবাগেরহাট জেলা তথ্য বাতায়নের মাধ্যমে কৃষি,  শিক্ষা,  স্বাস্থ্য ও  পর্যটনের   প্রসারসম্পর্কিত  তথ্যসমূহ  নিয়মিতভাবে হালনাগাদ করা হচ্ছে।

খ) জেলা তথ্য বাতায়নের   ই-ডিরেক্টরিতে জেলার বিভিন্ন দপ্তরের ঠিকানাসহ  ফোননম্বরসমূহ সংরক্ষণ করা হচ্ছে।এ ছাড়া এই তথ্য বাতায়নের মাধ্যমে স্থানীয়  সরকার বিষয়ক এবং জনগণের জন্য প্রয়োজনীয় আইন ও পলিসিসম্পর্কে জনগণকেতথ্য  প্রদান করা হচ্ছে। সরকারের নির্দেশনা সম্বলিত গুরম্নত্বপূর্ণ চিঠিপত্রাদি  জেলাতথ্য বাতায়নের ডিজিটাল গার্ড ফাইলে সংরক্ষণ করা হচ্ছে। জেলা তথ্য  বাতায়নেফ্রন্ট ডেস্ক এবং ইউনিয়ন তথ্য ও সেবা কেন্দ্র সম্পর্কিত মেন্যু  ও  খোলা হয়েছে।এখানে এনজিওদের তালিকাও সন্নিবেশিত হয়েছে।

গ)জেলা  তথ্য বাতায়নের হোম পেইজ-এ বিদ্যমান ইণ্টারফেস এ জনগণের প্রয়োজনেআ রোকিছু উপাদান,  যেমন-ডিজিটাল  গার্ডফাইল, সিটিজেনচার্টার, ডিজিটাল  ডিস্ট্রিক্ট  প্রোফাইল, বোর্ড/বিশ্ববিদ্যালয়ের   তথ্যাদি, আইন    পলিসি,   ফ্রন্টডেস্ক,   ইউনিয়ন  তথ্য    সেবাকেন্দ্র, জণগণের  সভা,   এনজিওদের  তালিকা   ইত্যাদি   সংযোজন   করার   ফলে   বাগেরহাট  জ়েলাতথ্য  বাতায়নের  দর্শনার্থীর  সংখ্যা  প্রতিদিনই  বাড়ছে। ডিজিটাল গার্ড  ফাইল  জেলা  তথ্য  বাতায়নে  সংযোজন  করার ফলে  জনগণ  সহ বিভিন্ন  দপ্তরের  জন্য  প্রয়োজনীয়  সরকারী  নির্দেশনাসমূহ  প্রাপ্তি  সহজতর হয়েছে। এতে জেলা  প্রশাসনের  সঙ্গে  জনগণের যোগাযোগ  আরো  ঘনিষ্ঠ  হয়েছে।

ফ্রন্ট ডেস্ক স্থাপন

 

সরকার কর্তৃক সূচিত জনহিতৈষী ও সেবামূলক প্রশাসনের বিভিন্ন ইতিবাচক ওযুগোপযোগী পদক্ষেপ সম্পর্কে সঠিকভাবে অবহিতকরণ ও জনগণের দুর্ভোগ লাঘব করেজেলা প্রশাসনকে গতিশীল করার প্রয়াসে বাগেরহাটজেলা প্রশাসকের কার্যালয়েরনীচ তলায়  ফ্রন্টডেস্ক স্থাপন করা হয়েছে। সেবা প্রার্থীজনসাধারণকে তথ্য সেবা প্রদানের লক্ষে ফ্রন্ট ডেস্কে একটি টেলিফোনসহ একটিকম্পিউটার স্থাপন করা হয়েছে। ফ্রন্টডেস্কে জেলাধীন বিভিন্ন অফিসের ঠিকানা, ফোন নম্বর, কর্মকর্তা/ কর্মচারীদের হালনাগাদ তথ্য, জেলা প্রশাসকেরকার্যালয়ের বিভিন্ন অফিস কক্ষ ও শাখাসমূহের অবস্থান সম্পর্কিত কক্ষ নম্বরনির্দেশিকা, বিভিন্ন শাখার কার্যক্রম বা জনসেবামূলক সিটিজেন চার্টারসংরক্ষণ করা হয়েছে। জনগণকে সহজে তথ্য সেবা প্রদানের লক্ষে্য একজন অফিসসহকারী জনগণকে বিভিন্ন তথ্য প্রদান করছেন এবং বিভিন্ন দপ্তরের সাথেযোগাযোগের জন্য সহায়তা করছেন। ফলে সারা জেলায় জেলা প্রশাসনেরভাবমূর্তিপ্রোজ্জ্বল হয়েছে। ফ্রন্ট ডেস্ক ছাড়াও আধুনিক সুযোগ-সুবিধাসম্বলিত ‘‘এক কেন্দ্রে সেবা’’ প্রদানের লক্ষে্য ফ্রন্ট ডেস্কের পাশ্ববর্তীএকটি সুপরিসর কক্ষে জেলা প্রশাসনে আগত সেবা গ্রহীতাদের অচিরেই ‘‘এককেন্দ্রে সেবা’’ থেকে সেবা প্রদান করার কার্যক্রম গ্রহণ করাহয়েছে।

ডিজিটাল বাংলাদেশ বিষয়ক জনসচেতনতা

ক) সমাজের সর্বস্তরের মানুষের মধ্যে ডিজিটাল বাংলাদেশ বিষয়ে সচেতনতাতৈরীর লক্ষ্যে জেলা প্রশাসকের তত্ত্বাবধানে জেলা ও উপজেলায়‘‘ডিজিটালবাংলাদেশ ও আমাদের করণীয়’’ শীর্ষক সেমিনার আয়োজন করা হয়েছে।

খ) জেলা প্রশাসক স্বয়ং বিভিন্ন সভা সেমিনারে ডিজিটাল বাংলাদেশবাস্তবায়নে করণীয় বিষয়ে ব্যাপক প্রণোদনা কার্যক্রম পরিচালনা করছেন। তিনিবিভিন্ন উপজেলা সফরের সময় উপজেলার জনপ্রতিনিধিবর্গ, সর্বস্তরের সরকারীকর্মকর্তা, সাংবাদিকবৃন্দ ও স্থানীয় জনগণের সাথে ডিজিটাল বাংলাদেশ বিষয়কমতবিনিময় সভায় মিলিত হচ্ছেন । এ সকল সভাতে জেলা প্রশাসক ডিজিটাল বাংলাদেশবাস্তবায়নে আমাদের সকলের করণীয় সম্পর্কে, মাদক পাচার ও অপব্যবহার সম্পর্কেগণসচেতনতা বৃদ্ধি ও ইভটিজিং সম্পর্কে আলোকপাত করার পাশাপাশি বিগত দেড় বছরেসরকারের অর্জিত বিভিন্ন সাফল্য সকলের নিকট তুলে ধরেছেন। এতে সবার কাছেসরকারের ভাবমুর্তি সমুজ্জ্বল হচ্ছে। তাছাড়া জেলার বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানসমূহ পরিদর্শনকালে জেলা প্রশাসক ছাত্র-ছাত্রীদেরকে ডিজিটালবাংলাদেশ বিষয়ে সম্যক ধারণা প্রদান করছেন এবং ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণেতাদের করণীয় সম্পর্কে উৎসাহ প্রদান করছেন। জেলা প্রশাসকের এরূপ নিরলসপ্রচেষ্টার কারণে সরকারী বেসরকারী দপ্তরসহ জন প্রতিনিধিবর্গ, মিডিয়া, ছাত্র-ছাত্রীবৃন্দ ও জনগণের মধ্যে ডিজিটাল বাংলাদেশ বিষয়ে একটি স্বচ্ছধারণার সৃষ্টি হয়েছে। জনগণ এতে ব্যাপকভাবে উদ্বুদ্ধ ও অনুপ্রাণিত হচ্ছে।

গ) বর্তমানে ইউনিয়ন তথ্য ও সেবা কেন্দ্রসমূহের কেন্দ্র পরিচালকদেরকম্পিউটার প্রশিক্ষণ প্রদান চলছে। এই তথ্য কেন্দ্রে এসে জনগণ খুব অল্প সময়েও কম খরচে ইণ্টারনেটের মাধ্যমে বৈদেশিক যোগাযোগ, কম্পোজ, প্রিণ্টিং, স্ক্যানিং, ই-মেইলের মাধ্যমে তথ্য আদান প্রদানসহ অন্যান্য সেবা গ্রহণ করতেপারবেন। জনগণের দোরগোড়ায় সেবা পৌঁছে দিতে উল্লিখিত তথ্য ও সেবা কেন্দ্রসমূহব্যাপক ভূমিকা রাখবে ।

ঘ) উপজেলা পর্যায়ে কমিউনিটি ই-সেণ্টার স্থাপনের মধ্য দিয়ে জনগণকে সহজে ও দ্রম্নততম সময়ে সেবা প্রদান করার কার্যক্রম হাতে নেয়া হয়েছে।

জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে LAN সংযোগ স্থাপন

বাগেরহাটজেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সবগুলো শাখায় ইতোমধ্যে LAN সংযোগ স্থাপন করা হয়েছে। এ নেটওয়ার্কস্থাপনের মাধ্যমে এ কার্যালয়ের বিভিন্ন শাখার মধ্যে আন্তঃযোগাযোগ ব্যবস্থাউন্নততর হয়েছে এবং এর ফলে একদিকে যেমন তথ্যাদি আদান প্রদান সহজতর হবে, অন্যদিকে প্রশাসনের স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা নিশ্চিতসহ জনগণের চাহিদা মতেদ্রম্নত ও স্বল্প ব্যয়ে সেবা প্রদান সম্ভব হচ্ছে।

শাখা ভিত্তিক সিটিজেন চার্টার

সরকারী কার্যক্রমে জনপ্রশাসনে অধিকতর গতিশীলতা সৃষ্টি ও সেবার মান উন্নয়নেরলক্ষে্য বাগেরহাটজেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে বিভিন্ন শাখা ভিত্তিক সিটিজেনচার্টার প্রণয়ন করা হয়েছে এবং তা জনসাধারণের নিকট অবহিত করার ব্যবস্থাগ্রহণ করা হয়েছে। জেলা তথ্য বাতায়ন ও ফ্রণ্ট ডেস্কেও সিটিজেন চার্টারপ্রদর্শিত হচ্ছে।

জনগনের সভা

জনগণের সেবায়ই সদা নিয়োজিত বাগেরহাট জেলা প্রশাসন। ধনী দরিদ্র নির্বিশেষে বাগেরহাট জেলার সকল জনগনকে সমান গুরুত্ব দিয়ে তাদের অভাব অভিযোগ, আবেদন নিবেদন শোনার জন্য এবং তা দ্রুত সময়ে ও সুষ্ঠুভাবে সমাধানের জন্য বাগেরহাট জেলা প্রশাসন সুদুর অতীত থেকেই একনিষ্ঠ হয়ে কাজ করে আসছেন। আধুনিক জন প্রশাসনকে আরও গতিশীল ওজনমুখী করতে জেলা প্রশাসকের দপ্তরে সপ্তাহের অন্যান্য দিনের সাক্ষাৎছাড়াও প্রতি বুধবার জনগণের সভানামে জেলা প্রশাসকের সাথে জনগণের আলোচনা/সাক্ষাৎকার অনুষ্ঠিত হচ্ছে।বুধবার সারাদিন ব্যাপী জেলাপ্রশাসক জনগণের অভাব, অভিযোগ, আবেদন, নিবেদন শুনছেন এবং তাৎক্ষণিকভাবেনিষ্পত্তিযোগ্য বিষয়সমূহ তৎক্ষণাৎনিষ্পত্তি করে জনগণকে সেবা প্রদান করছেন।এছাড়াও টেলিফোনে বা লিখিতভাবে বিভিন্ন দপ্তর/ব্যক্তির সাথে যোগাযোগ করেজনগণের অভাব, অভিযোগ, আবেদন, নিবেদন নিষ্পত্তি করা হচ্ছে। জনগণের সভারসিদ্ধান্তসমূহ লিখিতভাবে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের কাছেও প্রয়োজনীয় কার্যক্রমগ্রহণের জন্য পাঠানো হচ্ছে। আপনি আপনার কোনো সমস্যা বা বিষয় প্রতি বুধবারঅনুষ্ঠিত জনগণের সভায় জেলা প্রশাসককে জানাতে পারেন। এছাড়া জেলা প্রশাসকেরদপ্তরের নিচতলায় ৫০৪ নং কক্ষে অবস্থিত আমাদের ফ্রন্ট ডেস্কেও যোগাযোগ করতে পারেন।